আপনার হুরুব আছে কিনা চেক করুন

নরসিংদীতে অস্ত্র ও গরুসহ ৬ ডাকাত গ্রেপ্তার

 নরসিংদীতে অস্ত্র ও গরুসহ ৬ ডাকাতকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। 



শুক্রবার (১৩ আগস্ট) বিকেলে এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানায় নরসিংদী জেলা পুলিশ। এর আগে বৃহস্পতিবার (১২ আগস্ট) রাতে সদর উপজেলার নতুন বাস স্ট্যান্ড মুক্তি চত্বরের পাশ থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।


গত ৯ আগস্ট পলাশের ঘোড়াশালে ডিবি পুলিশ পরিচয়ে গরুর ফার্মে প্রবেশ করে ৯টি গরু ডাকাতি করে তারা।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন-টাঙ্গাইল জেলার সোহরাব আলীর পুত্র আক্কাস আলী (৩০), একই জেলার মির্জাপুর থানার মাঞ্জু মিয়া (৩২),বাসাইল থানার আবদরি রহমানে পুত্র খোকন মিয়া (৩৪) , খুলনার হরিনটানা থানার মৃত বুইদার পুত্র মামুন মিয়া (৩৫),একই জেলার বাটিয়াঘাটা থানার মৃত মুর্শিদ শেখের পুত্র ইউসুফ শেখ (৩০) ও যোশর জেলার মনিরামপুর থানার বাবর আলীর পুত্র আরিফুল ইসলাম (৪০)।

পুলিশের প্রেস বিজ্ঞপ্তি অনুসারে, বৃহস্পতিবার রাতে নরসিংদী সদর উপজেলার শালিধা এলাকায় একদল ডাকাত ডাকাতির প্রস্তুতি নিচ্ছে বলে গোপন সংবাদ আসে নরসিংদী জেলা পুলিশের কাছে। পরে নরসিংদী সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার শাহেদ আহমেদ ও পুলিশ পরিদর্শক (নিরস্ত্র) আবুল বাশার পিপিএম এর নেতৃত্বে অভিযান পরিচালনা করা হয়।





এসময় ১৫ থেকে ১৬ জনের একটি ডাকাত দল পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে পালানোর চেষ্টা করলে পুলিশ ৬ জনকে গ্রেপ্তার করতে সক্ষম হয়। এসময় তাদের কাছ থেকে একটি লোহার তৈরি ওয়ান শুটার গান, গুলির কার্তুজ, গ্রেন্ডার মেশিন, ৮টি গরু, তিন চাকার একটি মাহেন্দ্রা গাড়ি ও লোহা - গ্রিল কাটার বিভিন্ন সরঞ্জাম উদ্ধার করে।

নরসিংদীর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (প্রশাসন) ইনামুল হক সাগর জানান, গত ৯ আগস্ট পলাশের ঘোড়াশাল থেকে ডিবি পুলিশ পরিচয়ে ৯টি গরু ডাকাতিতে তারা জড়িত ছিল এবং বৃহস্পতিবার রাতেও ডাকাতির উদ্দেশ্যে জড়ো হয়েছিল। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা এসব তথ্য স্বীকার করেছে।

এছাড়া ঘোড়াশাল থেকে চুরি হওয়া ৯টি গরুর মধ্যে ৮টি গরু ইতোমধ্যে কেরানীগঞ্জ থেকে উদ্ধার করা হয়েছে। এঘটনায় শুক্রবার নরসিংদী মডেল থানায় একটি মামলা হয়েছে। বিকেলে গ্রেপ্তারকৃত আসামিদের ৫ দিনের রিমান্ড চেয়ে আদালতে পাঠানো হলে আদালত ২ দিনের রিমান্ড মঞ্জুর করেন।
source somooy 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

নবীনতর পূর্বতন

نموذج الاتصال