আপনার হুরুব আছে কিনা চেক করুন

গ্রেফতাকৃত সন্ত্রাসীরা দীর্ঘদিন যাবত সন্ত্রাসী কার্যক্রম চালিয়ে আসছিলো।

 সেনাবাহিনীর অভিযানে রাঙ্গামাটিতে অস্ত্রসহ ৪ উপজাতি সন্ত্রাসী গ্রেফতার!




রাঙ্গামাটির বরকল উপজেলার দুর্গম জঙ্গলে অভিযান চালিয়ে অস্ত্রসহ ৪ উপজাতি সন্ত্রাসীকে গ্রেফতার করেছে সেনাবাহিনী। গ্রেফতাকৃত সন্ত্রাসীরা দীর্ঘদিন যাবত রাঙ্গামাটির বিভিন্ন উপজেলায় সন্ত্রাস ও চাঁদাবাজি চালিয়ে আসছিলো।


রাঙ্গামাটিতে এক বিশেষ অভিযানে অস্ত্রসহ ৪ উপজাতি সন্ত্রাসীকে আটক করেছে সদর জোন সেনাবাহিনী।




 জানা যায়, আজ ৩১ জুলাই (শনিবার)  ভোর রাতে গোয়েন্দা তথ্যের ভিত্তিতে পার্বত্য অঞ্চলের বরকল উপজেলার দুর্গম জঙ্গলে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়।



এই অভিযানে ইউপিডিএফ (মূল) এর সশস্ত্র সন্ত্রাসী ও চাঁদা সংগ্রহকারী সুরেন চাকমা (৩৬),অন্নাসং চাকমা(৪৫),অনিল চাকমা (১৯) এবং সাইমন চাকমা (৪০) কে গ্রেফতার করা হয়।


তাদের কাছ থেকে একটি একে-২২ রাইফেল, ৭৭ রাউন্ড অ্যামুনিশন, একটি ম্যাগাজিন, একটি ওয়াকিটকি সেট, একটি সোলার চার্জার, চাঁদা সংগ্রহের রশিদ বই, চারটি মোবাইল সেট, একটি হাত ঘড়ি, একটি ভুয়া আইডি কার্ড, রাষ্ট্র বিরোধী শ্লোগান সম্বলিত ব্যানার, নগদ ৬৩ হাজার ৫৯২ টাকা ও অন্যান্য সরঞ্জামাদি উদ্ধার করা হয়।



জানা যায়, তারা দীর্ঘদিন ধরে রাঙ্গামাটির বিভিন্ন উপজেলায় সন্ত্রাস ও চাঁদাবাজির মাধ্যমে অস্থিরতা সৃষ্টি করে আসছিল এবং তারা ইউপিডিএফ (মূল) এর সশস্ত্র শাখার সক্রিয় সদস্য বলে জানা যায়।



আজ ৩১ জুলাই (শনিবার)  সকালে রাঙ্গামাটি সদর জোনে আসামীদের নিয়ে এসে এক বিবৃতিতে এ তথ্য নিশ্চিত করেন।

 বিবৃতিতে জানানো হয়, আজ ভোর রাতে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পার্বত্য অঞ্চলের সশস্ত্র চাঁদাবাজদের গ্রেফতারের জন্য বরকল উপজেলার দুর্গম ছোট কাট্টলী এলাকার গভীর জঙ্গলে অভিযান চালায় রাঙ্গামাটি রিজিয়নের সদর জোনের সেনা সদস্যরা।







 এ সময় অস্ত্র, গুলি ও অন্যান্য সরঞ্জামসহ চারজনকে আটক করা হয়। আটককৃতদের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ শেষে বরকল থানায় হস্তান্তর করা হবে।







রাঙ্গামাটি সদর জোনের অধিনায়ক লে.কর্ণেল আমিনুর ইসলাম পিএস সি জানান, এই অভিযানে পার্বত্য চট্টগ্রামের অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী চাদাবাজ ও আঞ্চলিক সশস্ত্র সংগঠন গুলোর বিরুদ্ধে একটি সফল অভিযান এবং পার্বত্য চট্টগ্রামে শান্তি বজায় রাখতে নিরাপক্তা বাহিনীর এই ধরনের অভিযান অব্যাহত থাকবে।

  এ সকল সশস্ত্র সন্ত্রাসী চাদাবাজদের গ্রেফতারের ফলে নিরীহ জনমনে স্বস্তি ফিরে  আসবে বলে আশা করা যয়ে।

উৎস Dakghar24

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

নবীনতর পূর্বতন

نموذج الاتصال