আপনার হুরুব আছে কিনা চেক করুন

নিখোঁজের আট দিন পর বাসায় ফিরলেন ত্ব-হা


দীর্ঘ আট দিন নিখোঁজ  থাকার পর অবশেষে উদ্ধার করা হয়েছে আলোচিত ইসলামী বক্তা আবু ত্ব-হা মুহাম্মদ। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন রংপুর মহানগর 


নিখোঁজের আট দিন পর বাসায় ফিরলেন ত্ব-হা

নিখোঁজের আট দিন পর বাসায় ফিরলেন ত্ব-হা। নিখোঁজ আলোচিত ইসলামি বক্তা আবু ত্ব-হা মুহাম্মদ আদনান তার রংপুরের বাসায় ফিরে এসেছেন বলে খবর পাওয়া গেছে।






দেশের অন্যতম জনপ্রিয় ইসলামিক বক্তা আবু ত্ব-হা গত আটদিন নিখোঁজ ছিলেন । তার পুরো নাম মো. আফছানুল আদনান হলেও আবু ত্বহা মোহাম্মদ আদনান নামেই বেশী পরিচিত) এই ইসলামী বক্তা গত ১০ জুন (বৃহস্পতিবার) গভীর রাত থেকে নিখোঁজ ছিলেন।

তার সন্ধান পেতে আদনানের মা রংপুর কোতোয়ালি থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেছিলেন।






জানা যায়, ৩১ বছরের আবু ত্বহা সপরিবার রংপুর শহরে থাকেন। আজ দুপুরে তাঁর মা আজেদা বেগম জানান, তাঁর ছেলে অনলাইনে আরবি পড়ানোর পাশাপাশি দেশের বিভিন্ন মসজিদে জুমার খুতবা দিতে যেতেন। আদনান শুক্রবার ঢাকার একটি মসজিদে খুতবা দেওয়ার উদ্দেশে রংপুর থেকে বৃহস্পতিবার বিকেল চারটার দিকে ভাড়া করা একটি গাড়িতে ঢাকায় রওনা দেন। আদনানের সঙ্গে ছিলেন তাঁর দুই সঙ্গী আবদুল মুহিত ও ফিরোজ। এ ছাড়া গাড়িচালক হিসেবে ছিলেন আমির উদ্দিন ফয়েজ।



গত ১০ জুন (বৃহস্পতিবার) দিবাগত রাত ২টা ৩৬ মিনিটে আদনানকে তাঁর স্ত্রী ফোন দিলে তিনি বলেন, তিনি এখন ঢাকার গাবতলীতে আছেন। মুঠোফোনের চার্জও প্রায় শেষ হয়ে গেছে। এরপর থেকে আদনানসহ সবার মুঠোফোনই বন্ধ রয়েছে।

আজেদা বেগম বলেন, আদনান কোনো রাজনীতি বা কোনো ধর্মীয় সংগঠনও করেন না। আদনানের খোঁজ না পেয়ে পরিবার উদ্বিগ্ন ও উৎকণ্ঠিত। ছেলেকে ফিরে পেতে আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনীর সহযোগিতা ও হস্তক্ষেপ চান আজেদা।



এদিকেই এই ঘটনায় মামলা হয়নি এই অভিযোগের ব্যাপারে আবু ত্বহার স্ত্রী সাবেকুন নাহার বলেছিলেন, “কোথায় মামলা করবো, কার কাছে অভিযোগ করবো? মামলা করবো কী, কেউ তো জিডিই নিতে রাজী হচ্ছে না।”

তিনি বলেছেন স্বামীর নিখোঁজ হবার বিষয় নিয়ে শুক্রবার বিকেলেই পুলিশের শরণাপন্ন হন তারা। কিন্তু গাবতলী সংলগ্ন দারুসসালাম থানা কিংবা মিরপুর থানা কেউই মামলা গ্রহণ করেনি।





জানা যায়, আদনান অনলাইনে ধর্মীয় বক্তা হিসেবে পরিচিত। আদনানের বাড়ি রংপুর নগরীর সেন্ট্রাল রোডের আহলে হাদিস মসজিদ এলাকায়। তবে ত্ব-হা তার স্ত্রী এবং দেড় বছরের ছেলে ও তিন বছরের মেয়েকে নিয়ে শালবন মিস্ত্রীপাড়া চেয়ারম্যান গলিতে ভাড়া বাসায় থাকেন। আদনান অনলাইনে আরবি পড়ানোর পাশাপাশি দেশের বিভিন্ন মসজিদে গিয়ে জুমার খুতবা দিতেন।

আবু ত্ব-হা মোহাম্মদ আদনান ২০১৮ সালে একটি ইসলামি ট্যালেন্ট হান্ট প্রতিযোগিতায় রানারআপ হন। এরপর ইসলামী শিক্ষা বিষয়ক ইউটিউব চ্যানেল খোলেন। পাশাপাশি দেশের বিভিন্ন মসজিদে দেয়া জুমার খুদবা তার নিজের চ্যানেলে প্রচার করে জনপ্রিয়তা পান।



Source 

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

নবীনতর পূর্বতন

نموذج الاتصال